নকলা পৌরসভার সম্ভাব্য বাজেট ঘোষণা

নকলা পৌরসভার সম্ভাব্য বাজেট ঘোষণা

রেজাউল হাসান সাফিত,নকলা(শেরপুর)প্রতিনিধি: শেরপুরের নকলা পৌরসভার ২০২১-২২ অর্থ বছরের সম্ভাব্য উন্মুক্ত বাজেট ঘোষণা করা হয়েছে। ২৮ জুন সোমবার পৌরসভার মিলনায়তনে পৌর মেয়র হাফিজুর রহমান লিটনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সম্ভাব্য বাজেট ঘোষণা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম জিন্নাহ। এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন পৌর সচিব মনিরুল ইসলাম।

পৌরসভার মেয়র হাফিজুর রহমান লিটন ৮৭ কোটি ৪৩ লাখ ২৫ হাজার ৬৭১ টাকা আয়ের আশা করে এবং ৮৫ কোটি ৫৬ লাখ ৮০ হাজার টাকা ব্যায়ের লক্ষমাত্রা নির্ধারন করা হয়েছে। আয়ের খাতে রাজস্ব হতে ৭ কোটি ৭৫ লাখ ৪৮ হাজার ৯৬৪ টাকা, উন্নয়ন খাত হতে ৭৮ কোটি ১২ লাখ ৩৬ হাজার ৬৫৩ টাকা ও মূলধন হতে এক কোটি ৫৫ লাখ ৪০ হাজার ৫৪ টাকা এবং ব্যায়ের খাতে রাজস্ব হতে ৭ কোটি ৫১ লাখ ৮০ হাজার টাকা, উন্নয়ন খাত হতে ৭৭ কোটি ৭০ লাখ টাকা ও মূলধন হতে ৩৫ লাখ ব্যয় করা হবে বলে সম্ভাব্য বাজেটে আশা করা হয়েছে।

বাজেট ঘোষনা অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- উপজেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক খলিলুর রহমান, সদস্য ইন্দ্রজিত ধর সুভাষ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কমান্ড কাউন্সিলের সাবেক কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল মনসুর, উপজেলা কৃষক লীগের আহ্বায়ক ও নকলা ডিভেটিং সোসাইটির আহবায়ক আলমগীর আজাদ, উপজেলা পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি দেবজিৎ পোদ্দার ঝুমুর, উপজেলা যুবলীগের সদস্য আইয়্যুব খান, নকলা প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদক মোশাররফ হোসেন সরকার বাবু, সহ-সভাপতি খন্দকার জসিম উদ্দিন মিন্টু প্রমুখ।

এসময় পৌর পরিষদের সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর মোছা. সুফিয়া বেগম, জমিহলা বেগম ও মোছা. সুফিয়া বেগম; সাধারণ কাউন্সিলর মো. সারুয়ার আলম, মো. জরিফ হোসেন, নূরে আলম সিদ্দিক, মো. ফরিদ আহম্মেদ লালন, মো. তোতা মিয়া, মো. জিয়াউল হক, মো. ইয়াদ আলী, মো. রফিকুল ইসলাম ও মো. ইন্তাজ আলী, বঙ্গবন্ধু শিক্ষা ও গবেষণা পরিষদ নকলা উপজেলা শাখার সভাপতি মজিবর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক ও নকলা প্রেস ক্লাবের সভাপতি মো. মোশারফ হোসাইন, প্রেস ক্লাবের যুগ্ম সাধারন সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক নূর হোসেন, প্রচার সম্পাদক নাহিদুল ইসলাম রিজন, সদস্য আব্দুর রফিক, সীমানুর রহমান সুখন, রাইসুল ইসলাম রিফাত, পৌরসভার হিসাব রক্ষক মো. ফেরদৌসুর রহমান, সহকারী কর আদায় কারী মো. মোশাররফ হোসেন, কম্পিউটার অপারেটর মো. রাজিবসহ উপজেলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, পৌরসভা ও বিভিন্ন ইউনিয়নের জনপ্রতিনিধি, বিভিন্ন পেশাজীবী, গণ্যমান্য ব্যাক্তিবর্গ, স্থানীয় জনগণ, সরকারি-বেসরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারী, শিক্ষক, ইমাম-মোয়াজ্জেম ও স্থানীয় সাংবাদিকগনসহ সুধিজনরা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.