শেরপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কয়েদির মৃত্যু-সত্যবয়ান

শেরপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কয়েদির মৃত্যু-সত্যবয়ান

স্টাফ রিপোর্টার:দুটি মাদক মামলায় বিভিন্ন মেয়াদে সাজাপ্রাপ্ত হয়ে শেরপুর জেলা কারাগারে থাকা তৈয়মদ্দিন (৪৫) নামে এক কয়েদির হাসপাতালে মৃত্যু হয়েছে। ২৭ জুলাই মঙ্গলবার দুপুরে জেলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। তৈয়মদ্দিন শহরের পশ্চিম গৌরীপুর মহল্লার সিরাজ আলীর ছেলে।

জানা যায়, তৈয়মদ্দিনকে দুটি মাদক মামলায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে কারাদণ্ড দিয়ে গত বছরের ৩১ ডিসেম্বর জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়। এর মধ্যে একটি মাদক মামলায় ৬ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড ও আরেকটি মাদক মামলায় দেড় মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড প্রাপ্ত হয়ে জেলা কারাগারে সাজা ভোগ করছিলেন তিনি। আগামী ১৫ আগস্ট তার সাজার মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা ছিল।

কারাগারের জেলার তারিকুল ইসলাম বলেন, দীর্ঘদিন থেকেই তৈয়মদ্দিন শ্বাসকষ্টসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত ছিলেন। কিছুদিন থেকে তার শ্বাসকষ্ট বেড়ে যাওয়ায় তিনি কারা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। মঙ্গলবার সকালে তার শ্বাসকষ্ট বেড়ে গিয়ে অবস্থার অবনতি হলে তাৎক্ষণিক তাকে জেলা সদর হাসপাতালে উন্নত চিকিৎসার জন্য প্রেরণ করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। এ ঘটনায় সদর থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

এ ব্যাপারে জেলা সদর হাসপাতালের আরএমও ডা. মোবারক হোসেন বলেন, তৈয়মদ্দিনকে মঙ্গলবার সকাল ১০টার দিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে মারা যান তিনি। তার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!