ঝিনাইগাতীতে ডিবি’র পরিচয়ে হারুন মিয়া নামে এক ব্যক্তিকে হত্যার চেষ্টা ॥ থানা পুলিশের তৎপরতায় উদ্ধার-সত্যবয়ান

ঝিনাইগাতীতে ডিবি’র পরিচয়ে হারুন মিয়া নামে এক ব্যক্তিকে হত্যার চেষ্টা ॥ থানা পুলিশের তৎপরতায় উদ্ধার-সত্যবয়ান

হারুন অর রশিদ দুদু : শেরপুর জেলার ঝিনাইগাতীতে ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে হারুন মিয়া (৩৭) নামের এক ব্যক্তিকে বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে হত্যা নিশ্চিত করে চলে যাওয়ার পর তাকে জীবিত উদ্ধার করেছেন ঝিনাইগাতী থানা পুলিশ। ১১ সেপ্টেম্বর শনিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১০ টার দিকে উপজেলার সদর ইউনিয়নের পাইকুড়া মালিঝিপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। হারুন মিয়া ওই গ্রামের মৃত হাবিবুর রহমানের পুত্র। হারুন মিয়ার পরিবার ও থানা পুলিশ সুত্রে জানা যায়, শনিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১০ টার দিকে সিএনজি যোগে ৪/৫ জন ব্যক্তি ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে জোর পূর্বক হারুন মিয়াকে তার নিজ বাড়ী থেকে তুলে নিয়ে নালিতাবাড়ী উপজেলার নন্নী আমবাগান গুচ্ছগ্রামের কাছে হাত বেঁধে মুখে কসটেপ মেরে ও উলঙ্গ করে শরীরের নানান স্থানে আঘাত করে মৃত্যু নিশ্চিত করে ফেলে তারা চলে যায়। এর কিছুক্ষণ পর হারুন মিয়া কোন মতে হামাগুড়ি দিয়ে রাস্তার উপরে আসলে পথচারিরা দেখতে পেয়ে তাকে উদ্ধার করে থানা পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে মারাত্মক ভাবে আহত হওয়া হারুন মিয়াকে দ্রুত শেরপুর সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। বর্তমানে হারুন মিয়া শেরপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। ঝিনাইগাতী থানার ওসি (তদন্ত) সরোয়ার হোসেন জানান, বিষয়টি আমরা খুবই গুরুত্বের সাথে নিয়েছি। তবে হারুন মিয়া খুবই অসুস্থ থাকায় তার কাছ থেকে তেমন কিছু জানা যায়নি। সুস্থ হলে প্রয়োজনীয় তথ্য জেনে পুলিশ ব্যবস্থা নিবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!