জমির আইল কাটা নিয়ে দুই ভায়ের মধ্যে বাগবিতণ্ড|| ছোট ভাই লাল মাহমুদের মৃত্যু-সত্যবয়ান

জমির আইল কাটা নিয়ে দুই ভায়ের মধ্যে বাগবিতণ্ড|| ছোট ভাই লাল মাহমুদের মৃত্যু-সত্যবয়ান

স্টাফ রিপোর্টার||শেরপুরে জমির আইল কাটা নি‌য়ে দুই ভাইয়ের ঝগড়া এবং বাগবিতণ্ডার এক পর্যায়ে ছোট ভাইয়ের মারা যাওয়ার খবর পাওয়া গে‌ছে। 

রোববার (২৬ সেপ্টেম্বর) দুপুরে সদর উপজেলার চরমোচারিয়া ইউনিয়নের হরিণধরা পশ্চিমপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘ‌টে। নিহত ছোট ভাই লাল মামুদ ও বড় ভাই মো. ছানোয়ার হোসেন। তারা ওই এলাকার মৃত হাফেজ উদ্দিনের ছে‌লে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সদর উপজেলার হরিণধরা গ্রামের মৃত হাফেজ উদ্দিনের বড় ছেলে মো. ছানোয়ার হোসেন ও ছোট ছেলে লাল মামুদ মেম্বারের সা‌থে দীর্ঘদিন ধ‌রে জমি সংক্রান্ত নি‌য়ে বিরোধ চলে আসছিল। রোববার দুপুর ১২টার দিকে লাল মামুদ মেম্বার বাড়ীর পাশের্ব জমিতে কোদাল দিয়ে কাজ করার সময় তার বড় ভাই ছানোয়ার হোসেনের ক্ষেতের আইল বেশি কেটে ফেলে।

এসময় ছানোয়ার হোসেন প্রথমে প্রতিবাদ এবং বাগবিতণ্ডার এক পর্যায়ে লাল মামুদকে মারতে গেলে সে তাৎক্ষণিক জ্ঞান হারায়। পরে তাকে পরিবারের লোকজন উদ্ধার করে স্থানীয় পল্লী চিকিৎসকের কাছে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। 

প‌রে খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোহাম্মদ হান্নান মিয়া, সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) বন্দে আলী, উপ-পরিদর্শক (এসআই) রুবেল সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থল গিয়ে লাল মামুদ মেম্বারের মৃতদেহের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি শেষে ময়নাতদন্তের জন্য শেরপুর জেলা সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছেন।

এ বিষয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোহাম্মদ হান্নান মিয়া ব‌লেন, লাল মামুদ কিভা‌বে মারা গে‌ছে এটা এই মুহু‌র্তে পরিস্কার নয়। ত‌বে মৃতদেহে কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। মৃত্যুর রহস্য উদঘাটন এবং ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে লাল মামুদের মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। এ ব্যাপারে তার পরিবারের পক্ষ থেকে শেরপুর সদর থানায় এক‌টি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!