শেরপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে মোটরসাইকেল প্রতিকের চেয়ারম্যান প্রার্থী রুমানের সংবাদ সম্মেলন

শেরপুর জেলা পরিষদ নির্বাচনে মোটরসাইকেল প্রতিকের চেয়ারম্যান প্রার্থী রুমানের সংবাদ সম্মেলন

স্টাফ রিপোর্টার|| সারাদেশের ন্যায় আগামী ১৭ অক্টোবর আসন্ন জেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এতে শেরপুর জেলা পরিষদ নির্বাচন হতে যাচ্ছে। নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত আনারস প্রতীকের প্রার্থী এডভোকেট চন্দন কুমার পাল এর বিপরীতে জেলা আওয়ামী লীগের বর্তমান সাংগঠনিক সম্পাদক একাধারে সাবেক জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এবং পরবর্তীতে জেলা পরিষদ প্রশাসক মো. হুমায়ুন কবীর রুমান মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়ে ভোট যুদ্ধে মাঠে নেমেছেন। নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠ ও নিরপেক্ষ চেয়ে তিনি নির্বাচন কমিশন ও জেলার দায়িত্বপ্রাপ্ত রিটার্নিং অফিসারের কাছে বিভিন্ন অভিযোগ দায়ের করেছেন।

মোটরসাইকেল প্রতীক চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. হুমায়ুন কবীর রুমান সুষ্ঠ নির্বাচনের দাবিতে বুধবার (১২ অক্টোবর) বিকেল ৩টায় জেলা শহরের খরমপুর তার নির্বাচনী প্রচারনা কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলন আহ্বান করেন। এসময় তিনি উপস্থিত গণমাধ্যমকর্মীদের সম্মুখে লিখিত বক্তব্য পাঠ করে বলেন, বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের হুইপ বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব মো. আতিউর রহমান আতিক এমপি আওয়ামী লীগ মনোনীত দলীয় জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান প্রার্থী আনারস প্রতীক এডভোকেট চন্দন কুমার পাল পিপিকে বিজয়ী করেত টিআর প্রকল্পের সরকারি অনুদানের আশ্বাস দিয়ে শেরপুর জেলার প্রত্যেক ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যদের তার পক্ষে এবং তার মনোনীত প্রার্থীকে বিজয়ী করার প্রচারনা চালাচ্ছেন বলে অভিযোগ করেন। এছাড়াও হুইপ আতিক এমপি নির্বাচনী আচরণ বিধি লঙ্ঘন করছেন বলেও তিনি অভিযোগ করেন এবং নির্বাচনে পক্ষপাত করলে মানববন্ধনসহ বিভিন্ন কর্মসূচি দিয়ে মাঠে নামবেন বলে তিনি এমনটাই জানান।

তবে এব্যাপারে স্থানীয় সাংসদ হুইপ আতিউর রহমান তার বিরুদ্ধে এটি ষড়যন্ত্র বলে দাবি করে জানান, তিনি কোনভাবেই নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন করছেন না। বরং তিনি কিছুটা অসুস্থ থাকায় বাসায় চিকিৎসা ও রেস্ট নিচ্ছেন। তিনি কোনো মেম্বার চেয়ারম্যানকে জেলা পরিষদের নির্বাচনের ব্যাপারে প্রভাবিত করেননি। তিনি জানান, নির্বাচনী আচরণবিধি নিজ বাড়ীতে অবস্থান করা যাবে না এমন কোথাও লেখা নেই যদি নিজ বাড়িতে অবস্থান করা নিয়ম না থাকে তবে তিনি থাকবেন না বলেও গণমাধ্যমকর্মীদের অবহিত করেন।

সংবাদ সম্মেলনে জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল খালেক, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগ সভাপতি শামছুন্নাহার কামাল, সদর উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান বায়েজীদ হাসানসহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকগণ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.